নি:সঙ্গ যুদ্ধের আলিঙ্গনে…

স্ট্রাইক রেটের সাথে সাথে আরেকটা কারণেও বিখ্যাত ছিলেন এই ভদ্রলোক। সেটা হল তাঁর ভুতুড়ে ব্যাটিং স্ট্যান্ট। ব্যাটে লেগে থাকা লাল বলের ছোপ ছোপ দাগ, চোখের নিচে কালো দাগ, ক্রিজের মধ্যে বেল দিয়ে ঠোকা দিয়ে গার্ড নেওয়া - ভদ্রলোককে চিনতে আর কিছু…

সাদা বিদ্যুৎ, কালো অধ্যায়!

ডোনাল্ডের মান বোঝার জন্য একটা তথ্যই যথেষ্ট। তাঁর ‘বানি’ ছিলেন স্বয়ং ক্রিকেটের বরপুত্র খ্যাত ব্রায়ান চার্লস লারা। আট বারের দেখায় ছয় বারই ব্রায়ান লারাকে নিজের শিকারে পরিনত করে।

চাই না প্রতিভার এমন অপচয়!

ক্রিকেটের বাইরে তার ব্যক্তিগত জীবনও বেশ এলোমেলো। শৃঙ্খলাজনিত অনেক ইস্যুতে অনেকবারই নাসিরকে নিয়ে সরব ছিল গণমাধ্যম। গুরুত্বপূর্ণ সব ম্যাচের আগেরদিন রাত করে টিম হোটেলে ফেরা, টিম মিটিংয়ে না থাকা – ইত্যাদি অসংখ্য অভিযোগ তাঁর বিরুদ্ধে হরহামেশাই…

প্রফেসরের পাঠশালায় স্বাগতম

ইতিবাচক ব্যাপার হল, মোহাম্মদ হাফিজ যাই বলেন - তাই মন্ত্রমুগ্ধের মত শোনেন সতীর্থতা। তাই, ‘প্রফেসর’ নামকরণে অবশ্যই হাফিজের পড়াশোনা আর প্রজ্ঞা আর সবাইকে প্রভাবিত করাও বড় একটা কারণ।

রোলার কোস্টার রাইড

২০১৯ আইপিএলে এসে তিনি হয়ে ওঠেন অতিমানবীয়। ২০২০ সালের আইপিএলে ছাড়িয়ে যাচ্ছেন। নিয়মিত ১৫০ কিলোমিটারের ওপর গতি নিয়ে বল করেছেন, উইকেট নেওয়ায় বিরাট কোহলির ভরসার পাত্র হয়ে উঠছেন। তিনি এখন শাইনিং সাইনি!

একজন ২.০ মানব/দানব

দিলশান হলেন ভিভ রিচার্ডস বা বীরেন্দ্র শেবাগ ঘরানার ব্যাটসম্যান। তাঁর জন্য রক্ষণ হল রণকৌশলের সর্বশেষ অস্ত্র। যদিও, টেকনিক্যালি যথেষ্ট সাউন্ড ছিলেন। জায়গা করে অফ সাইডে কাট করতে, কিংবা ড্রাইভ করতে ভালবাসতেন।

রূপান্তরের অভিনব আখ্যান

বরুণ চক্রবর্তী ক্রিকেট জীবন শুরু করেন সেই ১৩ বছর বয়সে। তখন তিনি ছিলেন উইকেটরক্ষক-ব্যাটসম্যান। ১৭ বছর বয়স অবধি এই পরিচয়েই খেলেছেন। কিন্তু, বারবার বয়সভিত্তিক ক্রিকেট দলগুলোতে জায়গা হচ্ছিল না কোনোভাবেই। প্রত্যাখ্যাতের যন্ত্রনা সইতে না পেরে…

বেদনার নাম এসকোবার

১৯৯৪ সালের ২২ জুন সেই ম্যাচে ৩৪ মিনিটে আমেরিকান মিডফিল্ডার জন হার্কসের ক্রস ক্লিয়ার করতে গিয়ে আত্নঘাতী গোল করে বসেন এসকোবার। খেলায় কলম্বিয়া ১-২ গোলে হেরে যায়। দ্বিতীয় পর্বে যাওয়ার জন্য জয়, অন্তত ড্র করার বিকল্প ছিল না কলম্বিয়ার।

চ্যাম্পিয়ন এন্টারটেইনার

সত্যিকারের অলরাউন্ডার বলতে যা বোঝাই তিনি তাই। ব্যাট হাতে তিনি দুর্দান্ত এক ফিনিশার। পরিস্থিতি বুঝে ব্যাট করায় তাঁর ‍জুড়ি নেই। তিনি ডেথ ওভারের তুখোড় বোলার। বিরল প্রজাতির পেস বোলিং অলরাউন্ডার তিনি। বয়স যাই হোক, এখনো তিনি মাঠের সেরা ফিল্ডারদের…

অভিজাত আফগান উত্থান

মুজিব উর রহমান যখন নিজের ক্রিকেটার হয়ে ওঠার গল্পটা বলছিলেন, ক্রাইস্টচার্চের সুরম্য হোটেলে বসেও সেটা শুনতে বেমানান ঠেকছিল না। শীর্ষ পর্যায়ে খেলা আর দশজন আফগান ক্রিকেটারের সংগ্রামের গল্পটা অনেক সময়েই পাঁচ তারকা হোটেলের আভিজাত্যের মধ্যে থেকে…