সুরিয়া বনাম আইয়ার, এক্স-ফ্যাক্টরের সন্ধানে

ওপেনিংয়ে রোহিত শর্মা এবং শুভমান গিল, তিন নম্বরে বিরাট কোহলি, এরপর লোকেশ রাহুল; ছয় আর সাত নম্বরে হার্দিক পান্ডিয়া আর রবীন্দ্র জাদেজা - ভারতের ব্যাাটিং অর্ডারে এই ছয় নিশ্চিত। কিন্তু বিশ্বকাপের প্রথম ম্যাচে পাঁচ নম্বরে কাকে রাখা হবে সেটা জানা যায়নি এখনো। শ্রেয়াস আইয়ার নাকি সুরিয়াকুমার যাদব দু’জনের যে কাউকে বাদ পড়তে হতে পারে।

ওপেনিংয়ে রোহিত শর্মা এবং শুভমান গিল, তিন নম্বরে বিরাট কোহলি, এরপর লোকেশ রাহুল; ছয় আর সাত নম্বরে হার্দিক পান্ডিয়া আর রবীন্দ্র জাদেজা – ভারতের ব্যাাটিং অর্ডারে এই ছয় নিশ্চিত। কিন্তু বিশ্বকাপের প্রথম ম্যাচে পাঁচ নম্বরে কাকে রাখা হবে সেটা জানা যায়নি এখনো। শ্রেয়াস আইয়ার নাকি সুরিয়াকুমার যাদব দু’জনের যে কাউকে বাদ পড়তে হতে পারে।

অবশ্য ভারতীয় কোচ রাহুল দ্রাবিড় সুরিয়াকুমারের সুযোগ পাওয়া নিয়ে বেশ ইতিবাচক। টিম ম্যানেজম্যান্ট ইতোমধ্যে সংক্ষিপ্ত একটা স্কোয়াড চূড়ান্ত করে ফেলেছে এবং সেখানে আছেন এই মারকুটে ব্যাটার এমনটাই জানিয়েছেন দ্রাবিড়।

সাবেক কোচ রবি শাস্ত্রীও এই ব্যাপারে একমত। সুরিয়াকে এক্স ফ্যাক্টর হিসেবে দেখেন তিনি; বৈশ্বিক আসরে ভারতকে প্রতিপক্ষের চেয়ে এগিয়ে রাখবেন এই ব্যাটার এমনটাই বিশ্বাস তাঁর। তাই তো মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সের তারকার দিকে চোখ রাখবেন প্রাক্তন এই ক্রিকেটার।

তিনি বলেন, ‘আমি তাঁকে ভালোভাবে দেখব, খুব কাছ থেকে। কেননা যদি আপনার টপ অর্ডার রান পায়, তাহলে আপনার হাতে ৬/৭/৮ জন ব্যাটার ব্যবহার করার মত থাকবে। যদি উপরের ব্যাটাররা রান পায় তাহলে সুরিয়া এক্স ফ্যাক্টর হতে পারবে। লোয়ার মিডল অর্ডারে হার্দিকের সঙ্গে মিলে সে যে তাণ্ডব চালাতে পারবে সেটা যেকোনো দলের হাত থেকে ম্যাচ ছিনিয়ে আনতে যথেষ্ট।’

তবে অস্ট্রেলিয়া সিরিজে দুজনে পারফর্ম করেছেন সমান তালে। সিরিজ উইনিং সেঞ্চুরির পাশাপাশি ৫২ গড়ে ১৫৬ রান এসেছে আইয়ারের ব্যাট থেকে। অন্যদিকে, তিন ম্যাচে ১৩০ রান করেছেন সুরিয়া – যেখানে ৩৭ বলে ৭২ রানের ঝড়ো ইনিংসও আছে।

পারফরম্যান্স সমান সমান হলেও সুরিয়াকুমার যাদবকেই পছন্দ রবী শাস্ত্রীর। তিনি বলেন, ‘আপনাকে কন্ডিশন বুঝতে হবে। ফ্ল্যাট ট্র্যাকে আমি সুরিয়াকুমারকে ব্যবহার করব। কারণ এমন পিচে উপরের ব্যাটাররা রান পাবে এটাই প্রত্যাশা। দলে পাঁচজন ব্যাটার আছে তাঁরা সবাই এক ধাঁচের – সেটা না করে এক্স ফ্যাক্টর ব্যবহার করা দরকার। সেটা হতে পারে একজন বাঁ-হাতি, হতে পারে সুরিয়া।’

আট অক্টোবর অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে ম্যাচ দিয়ে বিশ্বকাপ মিশন শুরু করবে ভারত। বিরাট কোহলি, রোহিত শর্মাদের নেতৃত্বে বিশ্বজয় করার এটাই শেষ সুযোগ তাঁদের। আর সেই সুযোগ কাজে লাগাতে চাইলে দায়িত্ব নিতে হবে সবাইকে। সুরিয়া কিংবা আইয়ার যিনিই একাদশে থাকেন না, নিজের সেরাটা দিতে পারলেই উপকৃত হবে টিম ইন্ডিয়া।

Get real time updates directly on you device, subscribe now.

আরও পড়ুন
মন্তব্যসমূহ
Loading...