বিদায় বলছেন রাজ্জাক-নাফিস

রাজ্জাক এবং নাফিসের অবসরের বিষয়টি গনমাধ্যমকে নিশ্চিত করেছেন ক্রিকেটারদের সংগঠন ক্রিকেটার্স ওয়ালফেয়ার অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ। আজ এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে সংগঠনটির পক্ষ থেকে জানানো হয় আগামীকাল শনিবার আনুষ্ঠানিক ভাবে অবসরের ঘোষণা দিবেন এই দুই ক্রিকেটার।

বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের (বিসিবি) নির্বাচক হিসাবে দায়িত্ব পেয়েছেন আব্দুর রাজ্জাক এবং বিসিবির ক্রিকেট অপারেশন্স কমিটির গুরুত্বপূর্ণ দায়িত্ব পাচ্ছেন শাহরিয়ার নাফিস। বোর্ডের নতুন দায়িত্ব পাওয়ার পরই সব ধরণের ক্রিকেট থেকে অবসরের ঘোষণা দিচ্ছেন জাতীয় দলের সাবেক এই দুই ক্রিকেটার।

রাজ্জাক এবং নাফিসের অবসরের বিষয়টি গনমাধ্যমকে নিশ্চিত করেছেন ক্রিকেটারদের সংগঠন ক্রিকেটার্স ওয়ালফেয়ার অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ। আজ এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে সংগঠনটির পক্ষ থেকে জানানো হয় আগামীকাল শনিবার আনুষ্ঠানিক ভাবে অবসরের ঘোষণা দিবেন এই দুই ক্রিকেটার।

আব্দুর রাজ্জাক দেশের হয়ে সর্বশেষ মাঠে নেমেছিলেন তিন বছর আগে এবং শাহরিয়ার নাফিস দেশের হয়ে সর্বশেষ আন্তর্জাতিক ম্যাচ খেলেছেন ৮ বছর আগে। এরপর ঘরোয়া লিগে পারফর্ম করলেও জাতীয় দলের দরজা খোলেনি তাদের জন্য। এখন থেকে ঘরোয়া ক্রিকেটেও দেখা যাবে না এই দুজনকে।

দেশের হয়ে মাত্র ১৩ টি টেস্ট খেলেছেন আব্দুর রাজ্জাক। ১৩ টেস্টে নিয়েছিলেন মাত্র ২৮ উইকেট। টেস্টে সফল না হলেও ওয়ানডেতে তার সময়ে দলের সেরা স্পিনার ছিলেন রাজ্জাক। প্রথম বাংলাদেশি হিসাবে ওয়ানডেতে ২০০ উইকেটের মাইলফলক স্পর্শ করেন এই স্পিনার।

ওয়ানডেতে ১৫৩ ম্যাচে এই বাঁহাতি স্পিনার শিকার করেছেন ২০৭ উইকেট আর ৩৪ টি টি-টোয়েন্টি ম্যাচ খেলা রাজ্জাকের ঝুলিতে রয়েছে ৪৪ উইকেট। বাংলাদেশের একমাত্র বোলার হিসাবে প্রথম শ্রেণীর ক্রিকেট ৬০০ উইকেট রয়েছে শুধুমাত্র রাজ্জাকেরই। প্রথম শ্রেণীর ক্রিকেটে ৬৩৪ উইকেট শিকার করেছেন তিনি।

শাহরিয়ার নাফিস ক্যারিয়ারের শুরুটা ছিল সোনায় মোড়ানো হলেও শেষটা সুখকর হলো না। শাহরিয়ার নাফিস ২০০৬ সালে হয়েছিলেন বর্ষসেরা ক্রিকেটার, ছিলেন বাংলাদেশের প্রথম টি-টোয়েন্টি ম্যাচের অধিনায়ক ও ২০০৭ বিশ্বকাপের সহ-অধিনায়ক। এক ক্যালেন্ডারে প্রথম ও একমাত্র বাংলাদেশী হিসেবে ওডিআই ক্রিকেটে ১০০০ রান রয়েছে শুধু মাত্র নাফিজেরই।

দেশের হয়ে ২৪ টেস্টে ২৬.৩৯ গড়ে ৭ হাফসেঞ্চুরি ও ১ সেঞ্চুরিতে নাফিজ সংগ্রহ করেছেন ১২৬৭ রান এবং ৭৫ ওয়ানডেতে ৩১.৪৪ গড়ে ১৩ হাফসেঞ্চুরি ও ৪ সেঞ্চুরিতে নাফিজের নামের পাশে রয়েছে ২২০১ রান। দেশের হয়ে মাত্র একটি টি-টোয়েন্টি খেলার সুযোগ পেয়ে নাফিজ করেছিলেন ২৫ রান।

প্রথম শ্রেণীর ক্রিকেটেও দেশের অন্যতম সফল ব্যাটসম্যান ছিলেন শাহরিয়ার নাফিজ। প্রথম শ্রেণীতে ১৪০ ম্যাচে ৩৮.৪০ গড়ে নাফিজ সংগ্রহ করেছেন ৮১৪১ রান।

আরও পড়ুন

Leave A Reply

Your email address will not be published.