সেরা ফিল্ডারদের সেরা একাদশ

আচ্ছা, বর্তমান সময়ে সেরা ফিল্ডার কে? না, এক জনের নাম নেওয়া যাবে না। আসলে এই তালিকাটা বেশ লম্বা। তো, তাঁদের সবাইকে নিয়ে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটের সেরা একটা একাদশ তৈরি করলে কেমন হয়, যেই একাদশে থাকবে বর্তমান ক্রিকেট দুনিয়ার সেরা ফিল্ডাররা।

জন্টি রোডস, পল কলিংউড, রিকি পন্টিং থেকে হালের রবিন্দ্র জাদেজা, মার্টিন গাপটিলরা প্রত্যেকেই ফিল্ডিংয়ে বেশ সুনাম কামিয়েছেন। সেই সাথে তাদের দূর্দান্ত সব ফিল্ডিং ভক্তদের মনে আলাদা জায়গা করে নিয়েছে।

আচ্ছা, বর্তমান সময়ে সেরা ফিল্ডার কে? না, এক জনের নাম নেওয়া যাবে না। আসলে এই তালিকাটা বেশ লম্বা। তো, তাঁদের সবাইকে নিয়ে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটের সেরা একটা একাদশ তৈরি করলে কেমন হয়, যেই একাদশে থাকবে বর্তমান ক্রিকেট দুনিয়ার সেরা ফিল্ডাররা। তো চলুন, দেরি না করে শুরু করা যাক।

  • মার্টিন গাপটিল (নিউজিল্যান্ড)

ক্রিকেটের সংক্ষিপ্ত ফরম্যাটের অন্যতম সেরা ব্যাটসম্যান কিউই ওপেনার মার্টিন গাপটিল। টি-টোয়েন্টি তে ৩৪ বছর বয়সী এই ওপেনারের স্ট্রাইক রেট ১৩৬ এবং ওয়ানডেতে সেটা ৮৭। এছাড়া ওয়ানডেতে তার ব্যক্তিগত ২৩৭ রানের রেকর্ড আছে যেটা ওয়ানডে ইতিহাসে দ্বিতীয় ব্যক্তিগত সর্বোচ্চ।

অসাধারণ ব্যাটিং দক্ষতা ছাড়াও মার্টিন গাপটিল একজন দূর্দান্ত ফিল্ডার৷ বিশেষকরে ডিপে তিনি অসাধারণ ফিল্ডিং করেন। বাঁ-পায়ে মাত্র তিন আঙ্গুল থাকা সত্ত্বেও ফিল্ডিংয়ে তার পারফরম্যান্স অসাধারণ। ২০১৯ বিশ্বকাপ সেমিফাইনালে শেষ মূহুর্তে গাপটিলের অসাধারণ এক ডিরেক্ট থ্রোতে ভারতীয় অধিনায়ক মহেন্দ্র সিং ধোনিকে রান আউট করাটা এখনো ক্রিকেটপ্রেমীদের মনে গেঁথে আছে। নিউজিল্যান্ডের জয়ে সেই থ্রো অনেক বড় অবদানই রেখেছিলো।

  • শিখর ধাওয়ান (ভারত)

বর্তমানে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে সংক্ষিপ্ত ফরম্যাটের সেরা ওপেনার শিখর ধাওয়ান। ব্যাট হাতে অনেকটা দ্রুত রান তোলার কারিগর তিনি। এছাড়া ‘রানিং বিটুইন দ্য উইকেটে’ তিনি বেশ দূর্দান্ত। দিল্লিতে জন্ম নেওয়া এই ক্রিকেটারের ফিটনেস লেভেলটাও অসাধারণ। যার কারণে ফিল্ডিংয়ে তিনি বেশ দূর্দান্ত।

অনেক কঠিন ক্যাচও তিনি সহজে তালুবন্দি করেছেন। বর্তমানে ক্রিকেটে অন্যতম সেরা ফিল্ডারদের একজন তিনি। ৩৪ বছর বয়সী ধাওয়ান সাধারণত মিড অফ এবং কাভার অঞ্চলে ফিল্ডিং করে থাকেন৷ দলের জন্য প্রায় সময়ই তাকে ফিল্ডিংয়ে দূর্দান্ত কিছু সেভ করতে দেখা যায়।

  • বিরাট কোহলি (ভারত): অধিনায়ক

আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে তিন ফরম্যাটেই বর্তমানে সেরা খেলোয়াড় বিরাট কোহলি। ভারতীয় এই অধিনায়ক তিন ফরম্যাটেই দীর্ঘদিন ধরেই ব্যাট হাতে দূর্দান্ত সময় পার করছে। সাম্প্রতিক সময়ে তার ফিল্ডিংয়ে কিছু ক্যাচ মিস করতে দেখা গেলেও তিনি দূর্দান্ত একজন ফিল্ডার। ৩২ বছর বয়সী এই ভারতীয় কাপ্তান ফিল্ডিংয়ে দূর্দান্ত সব ক্যাচের সাথে সাথে রানও সেভ করে থাকেন।

ব্যাট হাতে বর্তমানে তিন ফরম্যাটেই তাঁর গড় ৫০ এর উপরে। সেই সাথে ব্যাটিং র‍্যাঙ্কিংয়ে তিন ফরম্যাটেই তিন সেরা দশে আছেন। সব মিলিয়ে বর্তমানে বিশ্বের সেরা তিনজন খেলোয়াড়ের একজন তিনি।

  • স্টিভেন স্মিথ (অস্ট্রেলিয়া)

বর্তমান সময়ের কিংবা এই দশকের যাই বলেন না কেনো সেরা টেস্ট ব্যাটসম্যান হলে স্টিভেন স্মিথ। বিশ্বক্রিকেটে ‘ফ্যাবুলাস ফোর’ এর একজন হলেন স্মিথ। টেস্টে বর্তমানে তার এভারেজ প্রায় ৬২! ডন ব্র‍্যাডম্যানের পর দ্বিতীয় সর্বোচ্চ গড় টেস্টে তারই। ওয়ানডেতেও স্মিথের অবস্থান বেশ ভালো।

এছাড়াও এই ৩২ বছর বয়সী অজি তারকা ফিল্ডিংয়ে বেশ দূর্দান্ত৷ সাধারণত তিনি স্লিপ, ব্যাকওয়ার্ড পয়েন্ট অথবা ডিপে ফিল্ডিং করে থাকেন। ফিল্ডিংয়ে তার কাছ থেকে প্রায় সময়ই কিছু দূর্দান্ত সেভ কিংবা দারুন কিছু ক্যাচ দেখা যায়। এছাড়া ডিরেক্ট হিটেও অসাধারণ। বর্তমানে বিশ্বের সেরা ফিল্ডারদের একজন তিনি।

  • গ্লেন ম্যাক্সওয়েল (অস্ট্রেলিয়া)

অস্ট্রেলিয়ার মিডল অর্ডারের অন্যতম ভরসা গ্লেন ম্যাক্সওয়েলকে সবাই সাধারণত তার বিধ্বংসী ব্যাটিংয়ের জন্যই চিনি। আন্তর্জাতিক এবং ফ্র‍্যাঞ্চাইজি ক্রিকেটে বেশ কিছু বিধ্বংসী ইনিংস খেলে তিনি সুনাম কুড়িয়েছেন। এছাড়া তিনি অফ স্পিন বল করেও থাকেন। ব্রেক থ্রু এনে দিতে প্রায়সই ম্যাক্সওয়েলকে অধিনায়ক ব্যবহার করে থাকেন।

এই স্পিন বোলিং অলরাউন্ডার ফিল্ডিংয়েও বেশ দূর্দান্ত। ফিল্ডিংয়ে তিনি ক্যাচ ধরতে ভীষন পটু। সচরাচর তার হাত থেকে ক্যাচ ছুড়তে দেখা যায় না। যার জন্য বেশিরভাগ সময়ই তিনি বাউন্ডারিতে ফিল্ডিং করেন। তার ক্যারিয়ারে খুব বেশি ক্যাচ মিসের রেকর্ড নেই।

  • বেন স্টোকস (ইংল্যান্ড)

বর্তমান সময়ের অন্যতম সেরা অলরাউন্ডার বেন স্টোকস। ২০১৯ বিশ্বকাপে ইংল্যান্ডের জয়ের নায়ক, অজিদের বিপক্ষে অ্যাশেজ সিরিজে একা হাতে জয়ের নায়ক তিনি। নিউজিল্যান্ডে জন্ম নেওয়া এই ক্রিকেটার ইংল্যান্ডের হয়ে একা হাতে অনেক ম্যাচ জিতিয়েছেন।

ব্যাটিংয়ের পাশাপাশি পেস এট্যাকেও তিনি বেশ দক্ষ। এছাড়া অসাধারণ ফিল্ডিং দিয়ে যেকোনো মূহুর্তেই ম্যাচে মোড় এনে দিতে পারেন। ২০১৯ বিশ্বকাপে তিনি দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে অসাধারণ এক ক্যাচ ধরেন! যেটি সেই বিশ্বকাপের অন্যতম সেরা ক্যাচ। এছাড়া আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে তিনি বেশ কিছু দূর্দান্ত ক্যাচ ছাড়াও ফিল্ডিংয়ে দলের পক্ষে অনেক রান সেভ করেছেন।

  • রবিন্দ্র জাদেজা (ভারত)

বর্তমান সময়ে ক্রিকেটভক্তদের মতে কিংবা অনেক ক্রিকেটবোদ্ধাদের মতে সেরা ফিল্ডার হলেন রবীন্দ্র জাদেজা। ভারতীয় স্কোয়াডের অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ খেলোয়াড় তিনি। তার দূর্দান্ত থ্রোয়িং আর্মের কারণে তিনি প্রায়ই ডিরেক্ট থ্রো’য়ে স্টাম্প ভেঙ্গে ব্যাটসম্যানকে প্যাভিলিয়নের পথ দেখিয়েছেন।

রানিং বিটুইন দ্যা উইকেটেও তিনি দূর্দান্ত। এছাড়া ফিল্ডিংয়ে তার অসাধারণ ডাইভ, আর দারুন সব ক্যাচের কারণে ইতিমধ্যেই বিশ্বক্রিকেটে অন্যতম সেরা ফিল্ডার হিসেবে সুনাম কুড়িয়েছেন। তার অনবদ্য ফিল্ডিং দিয়েই ভারতকে বেশ কিছু ম্যাচে তিনি জয় এনে দিয়েছেন। এছাড়া দলের পক্ষে অনেক রানও তিনি সেভ করেন।

  • প্যাট কামিন্স (অস্ট্রেলিয়া)

সাদা পোশাকে কিংবা ক্রিকেটের সংক্ষিপ্ত ফরম্যাটে বর্তমান সময়ে প্যাট কামিন্স অত্যন্ত সফল এবং ভয়ংকর বোলার। ব্যাটসম্যানদের জন্য ২২ গজে এক প্রকার আতংক বলা চলে। ২০১৯ সালে টেস্টে এক নম্বর বোলার নির্বাচিত হন তিনি। চলতি আইসিসি টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের সর্বোচ্চ উইকেটশিকারিও বর্তমানে তিনি।

২৭ বছর বয়সী অজি ক্রিকেটের এই ‘বিগ অ্যাসেট’ দূর্দান্ত বোলিংয়ের পাশাপাশি ফিল্ডিংয়েও অসাধারণ। অজি ক্রিকেটের সেরা ফিল্ডারদের একজন তিনি। সচরাচর তাকে ক্যাচ মিস করতে দেখা যায় না। সেই সাথে দারুণ ফিল্ডিংও করেন তিনি।

  • জেমস অ্যান্ডারসন (ইংল্যান্ড)

৩৮ বছর বয়সে এসেও এখনো অদম্য গতিতে ছুটছেন ইংলিশ পেসার জেমস অ্যান্ডারসন। যদিও এখন শুধু সাদা পোশাকেই খেলছেন তিনি। এই বয়সেও ২২ গজে স্যুইং ভেলকি দেখাচ্ছেন তিনি। ২০১৮ সালে তিনি গ্লেন ম্যাগ্রার ৫৬৪ উইকেট টপকে যান এবং পরবর্তীতে ২০২০ সালে প্রথম পেসার হিসেবে টেস্টে ৬০০ উইকেটের মাইলফলক স্পর্শ করেন তিনি।

জেমস অ্যান্ডারসন সাধারণত স্লিপেই ফিল্ডিং করে থাকেন। পেসারদের সাধারণত স্লিপ ফিল্ডার হিসেবে দেখা যায় না। যদিও, অ্যান্ডারসন সেখানে বেশ দূর্দান্ত। স্লিপে বেশ কিছু নিঁচু ক্যাচও নিয়েছেন তিনি। স্লিপে তার কাছে ক্যাচ যাওয়া মানেই ব্যাটসম্যানের জন্য অশনি সংকেত। এই বয়সে এসেও তিনি বোলিংয়ের পাশাপাশি ফিল্ডিংয়ে দূর্দান্ত পারফরম্যান্স করছেন।

  • ট্রেন্ট বোল্ট নিউজিল্যান্ড)

বর্তমান সময়ে বেশ দারুণ ছন্দে আছেন কিউই পেসার ট্রেন্ট বোল্ট। ২২ গজে তিনি ব্যাটসম্যানদের জন্য আতংক। শুধু বোলিংয়েই নয় ফিল্ডিংয়ে তার দূর্দান্ত থ্রো যেকোনো সময়ই বিপদে ফেলতে পারে ব্যাটসম্যানদের। এখন পর্যন্ত তার ফিল্ডিং দিয়ে বেশ সুনাম কুড়িয়েছেন।

২০১৯ ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগে (আইপিএল) দিল্লী ডেয়ার ডেভিলসের হয়ে রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স ব্যাঙ্গালুরুর বিপক্ষে বিরাট কোহলির ফ্লিকে দূর্দান্ত এক ক্যাচ লুফে নিয়েছিলেন বাউন্ডারিতে। তার উচ্চতার কারণে বাউন্ডারিতে ফিল্ডিংয়ে বেশ সুবিধাও পেয়ে থাকেন তিনি। বাউন্ডারিতে অনেক দূর্দান্ত ক্যাচ নিতেও দেখা গেছে তাকে।

  • ক্যাগিসো রাবাদা (দক্ষিণ আফ্রিকা)

দক্ষিণ আফ্রিকান পেস বোলার ক্যাগিসো রাবাদা তিন ফরম্যাটেই বর্তমানে বেশ সফল একজন বোলার। তার গতি আর বাউন্স ব্যাটসম্যানদের জন্য একপ্রকার আতংক। ২৬ বছর বয়সী এই পেসার দূর্দান্ত ইয়োর্কারও করে থাকেন। বোলিংয়ে গতির পাশাপাশি ফিল্ডিংয়েও তিনি বেশ দ্রুত ছুটতে পারেন।

তাঁর উচ্চতা আর আর অসাধারণ ডাইভ স্কিলের কারণে বাউন্ডারিতে অনেক রান সেভ করতে পারেন। বর্তমান সময়ে বোলিংয়ের পাশাপাশি ফিল্ডিংয়েও তিনি নজরকাড়া পারফরম্যান্স করছেন।

Get real time updates directly on you device, subscribe now.

আরও পড়ুন
মন্তব্যসমূহ
Loading...